এসপি বাবুল এবং প্রথম আলোর ‘ইঙ্গিতপূর্ণ’ প্রধান খবর

এসপি বাবুল আক্তার তার স্ত্রীকে খুন করেছেন- কৌশলে এমন একটি বক্তব্য প্রকাশ করেছে দৈনিক প্রথম আলো। ২৮ জুন পত্রিকাটির প্রধান শিরোনাম হিসাবে প্রকাশিত খবরের বাক্যগঠন পাঠককে এমন ধারণা দেয় যে, স্ত্রী-হত্যায় বাবুল জড়িত।

‘বাবুল চাকরিতে ফিরছেন না?’ শিরোনামের খবরটির শুরুতে অসর্মিথত সূত্রের বরাত দিয়ে বাবুলের পুলিশ বাহিনী ছেড়ে দেয়ার ‘তথ্য’ দেয়া হয়।

Babul-P Alo 2
প্রথম আলোর প্রথম পৃষ্ঠায় প্রধান শিরোনাম হিসেবে ২৮ জুন প্রকাশিত খবরের আলোচ্য অংশের স্ক্রিনশট।

খবরের চতুর্থ অনুচ্ছেদে দেয়া হয় স্ত্রী হত্যার বাবুলের জড়িত থাকার ‘খবর’। এতে বলা হয়: নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক একজন পুলিশ কর্মকর্তা প্রথম আলোকে বলেন, গত শুক্রবার রাতে বাবুলকে ডিবি কার্যালয়ে আনার পর এক উপকমিশনারের কক্ষে ডিআইজি পদমর্যাদার তিনজন কর্মকর্তা জিজ্ঞাসাবাদ করেন। ওই সময় তাঁকে দুটি শর্ত দেওয়া হয় বলে জানা গেছে। বলা হয়, ঘটনার সঙ্গে জড়িত থাকার সব তথ্য-প্রমাণ তাঁদের হাতে রয়েছে। তাঁকে জেলে যেতে হবে অথবা বাহিনী থেকে সরে যেতে হবে। বাহিনী থেকে সরে যাওয়ার ব্যাপারে বাবুল সম্মতি দেন বলে জানা গেছে।

এর পরের অনুচ্ছেদে বলা হয়: জিজ্ঞাসাবাদে থাকা দুজন কর্মকর্তার কাছে এ ব্যাপারে জানতে চাইলে তাঁরা কোনো মন্তব্য করতে রাজি হননি। একজন কর্মকর্তা বলেন, পুলিশ মহাপরিদর্শক ছাড়া এ ব্যাপারে কেউ কিছু বলতে পারবেন না।

নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক পুলিশ কর্মকর্তার বক্তব্যে ‘আস্থা’ রেখে তা ‘সঠিক’ বিবেচনা করে প্রকাশ করেছে প্রথম আলো।

যদি ওই বক্তব্যে পত্রিকাটির আস্থা না থাকতো, যদি প্রথম আলো ওই বক্তব্যকে সঠিক বিবেচনা না করতো তাহলে কী হতো।

তাহলে চতুর্থ অনুচ্ছেদটি লেখা হতো এভাবে: নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক একজন পুলিশ কর্মকর্তা প্রথম আলোকে বলেন, গত শুক্রবার রাতে বাবুলকে ডিবি কার্যালয়ে আনার পর এক উপকমিশনারের কক্ষে ডিআইজি পদমর্যাদার তিনজন কর্মকর্তা জিজ্ঞাসাবাদ করেন। স্ত্রী হত্যায় বাবুলের জড়িত থাকার তথ্য-প্রমাণ তাঁদের হাতে রয়েছে দাবি করে তাঁকে দুটি শর্ত দেওয়া হয় বলে জানা গেছে। বলা হয়, তাঁকে জেলে যেতে হবে অথবা বাহিনী থেকে সরে যেতে হবে। বাহিনী থেকে সরে যাওয়ার ব্যাপারে বাবুল সম্মতি দেন বলে জানা গেছে।

কৌশলী বাক্যগঠনের মাধ্যমে স্ত্রী-হত্যায় বাবুলের জড়িত থাকার খবর প্রকাশ কি প্রথম আলোর অনিচ্ছাকৃত, নাকি ইচ্ছাকৃত?


ফ্যাক্ট-চেক: এসপি বাবুল, মৃত মিতু এবং হলুদ বাংলানিউজ২৪ডটকম


প্রথম আলোয় প্রকাশিত খবর

Advertisements

মন্তব্য?

Fill in your details below or click an icon to log in:

WordPress.com Logo

You are commenting using your WordPress.com account. Log Out / Change )

Twitter picture

You are commenting using your Twitter account. Log Out / Change )

Facebook photo

You are commenting using your Facebook account. Log Out / Change )

Google+ photo

You are commenting using your Google+ account. Log Out / Change )

Connecting to %s